Header Ads

  • Breaking News

    শাহজালালে ফের ১৯ পিস্তল জব্দ!


    রাজধানীর হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে ফের ১৯টি আমদানি নিষিদ্ধ পিস্তল জব্দ করেছে শুল্ক গোয়েন্দারা।

    গতকাল দুপুরে বিমানবন্দরের ফ্রেইট ইউনিট থেকে পিস্তলগুলো জব্দ করা হয়। পিস্তলগুলো পরীক্ষার সময় বিভিন্ন গোয়েন্দা সংস্থার বিশেষজ্ঞরা উপস্থিত ছিলেন। এর আগে গত রোববার একই ধরনের দুটি পিস্তল জব্দ করে শুল্ক গোয়েন্দারা।

    শুল্ক গোয়েন্দা ও তদন্ত অধিদফতরের কর্মকর্তারা জানান, উদ্ধার হওয়া অস্ত্রগুলো মেসার্স ইমরান আর্মস অ্যান্ড কোম্পানি নামে একটি প্রতিষ্ঠান আমদানি করেছে। গত রোববার একই প্রতিষ্ঠানের দুটি পিস্তল জব্দ করা হয়। এ নিয়ে ইমরান অ্যান্ড কোম্পানির ২১টি অস্ত্র জব্দ করা হল।

    এগুলোর মধ্যে ওয়ালথার পিপি ১৬টি ও পাঁচটি এইচকে ফোর ব্র্যান্ডের।

    শুল্ক গোয়েন্দা ও তদন্ত অধিদফতরের মহাপরিচালক ড. মইনুল খান জানান, এক চালানে ইতালি থেকে ৫৮টি অস্ত্র নিয়ে আসে মেসার্স ইমরান আর্মস অ্যান্ড কোম্পানি। আমদানিনীতি আদেশ অনুযায়ী, পুরনো ও অকার্যকর অস্ত্র আনার ওপর নিষেধাজ্ঞা রয়েছে। অস্ত্রগুলো পরীক্ষা করে দেখা গেছে, ১৯টি অস্ত্র পুরনো ও ফ্যাব্রিকেটেড। অস্ত্রগুলো আমদানির কোনো বৈধ কাগজপত্র দেখাতে পারেনি প্রতিষ্ঠানটি। তবে বাকি ৩৭টি অস্ত্রের বৈধ কাগজ পাওয়া গেছে। তিনি জানান, এসব অস্ত্রের অধিকাংশের বডির বিভিন্ন অংশের গায়ে খোদাই করা মুদ্রিত ইউনিক নম্বরও আলাদা। পুরনো অস্ত্র আমদানির কারণ কী তা তদন্ত করে দেখা হচ্ছে। তদন্ত প্রতিবেদন অনুযায়ী আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

    প্রসঙ্গত, প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চলের কাস্টমস নেটওয়ার্কগুলোর মধ্যে ৩ জুলাই থেকে শুরু হওয়া ‘অপারেশন আইরিন-২’-এর অংশ হিসেবে এই অভিযান পরিচালিত হয়। এই অভিযান ৪ আগস্ট পর্যন্ত চলবে। বাংলাদেশসহ এশিয়া প্যাসিফিক অঞ্চলের ২২টি দেশ অভিযানে অংশ নিচ্ছে। শুল্ক গোয়েন্দারা এই অভিযানের লিয়াজোঁ অফিস হিসেবে কাজ করছে।

    No comments

    Post Top Ad

    ad728

    Post Bottom Ad